০৬:৩৪ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ১৪ জুন ২০২৪, ৩১ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

আমিরাতের ব্যবসার জন্য ভারত উত্তম গন্তব্য: ভারতীয় মন্ত্রী

সংযুক্ত আরব আমিরাতের ব্যবসায়ীদেরকে ভারতে বিনিয়োগের আহবান জানিয়েছেন ভারতের কেন্দ্রীয় বাণিজ্য ও শিল্পমন্ত্রী পীযূষ গোয়েল। গত ২৯ মার্চ, মঙ্গলবার, ভারত-আরব আমিরাত স্টার্টআপ ফোরাম – ২০২২ এ বক্তব্য প্রদানকালে এমন মন্তব্য করেন তিনি। অনুষ্ঠানটিতে যোগ দিতে দুদিন পূর্বেই আবুধাবি যান মোদী মন্ত্রীসভার গুরুত্বপূর্ণ এই সদস্য। সেখানে ভারতের বিনিয়োগ বান্ধব নীতি এবং সুযোগসমূহ সম্পর্কে সবাইকে অবহিত করেন মন্ত্রী।

গোয়েল বলেন, “ভারত অত্যন্ত স্বল্প খরচে যে সুবিধা প্রদান করে, তাতে কোনো সন্দেহ নেই যে এখনই ভারতে বিনিয়োগের উপযুক্ত সময়। অংশীদার হিসেবে আমরা এঁকে অন্যের অর্থনৈতিক ভবিষ্যতের সুরক্ষা দিতে পারি। মহামারী পরবর্তী বিশ্বের অর্থনীতির চাকা সচল করতে আমাদের এই অংশীদারিত্বকে কাজে লাগাতে পারি।”

এর আগে দুবাই এক্সপো – ২০২০ এ অংশ নিয়ে গোয়েল বলেছিলেন, “আমি বিশ্বাস করি আমরা আগামী বছরগুলোতে বৃদ্ধি ও উন্নয়নের শীর্ষে থাকবো। ভারতে প্রতিভার কোন কমতি নেই। বিনিয়োগকারীদের জন্য গুরুত্বপূর্ণ ও সহজ নীতি প্রয়োগ করেছি আমরা। বেশিরভাগ বিনিয়োগ খাতেই বর্তমানে এফডিআই ১০০% উন্মুক্ত। ভারতের শিল্প খাতকে উন্নত করতে প্রোডাকশন লিংকড ইনসেনটিভ স্কিম এবং মেক ইন ইন্ডিয়া নীতির মতো কয়েকটি প্রকল্প গ্রহণ করেছি আমরা।”

গোয়েল বলেন, “বিশ্ব সম্প্রদায়ের কাছে আমাদের আহবান, আসুন, অপার সম্ভাবনা ও সুযোগের দেশ ভারতের অভিজ্ঞতা গ্রহণ করুন। আসুন একত্রে বেড়ে উঠি, ভাগ্য পরিবর্তন করি এবং একত্রে সকল বাঁধা অতিক্রম করি। আমরা চাইলেই সবাই মিলে যেকোনো লক্ষ্য অর্জন করতে পারবো।”

গোয়েল আরও বলেন, “ভারত নির্ভীক এবং আত্মবিশ্বাসী এক রাষ্ট্র। আগামী ২৫ বছরে ভারতকে একটি শক্তিশালী ও অন্তর্ভূক্তিমূলক অবস্থানে নিয়ে যেতে হবে। প্রধানমন্ত্রী মোদী এবং আমিরাতের মহামান্য শেখ মোহাম্মদ বিন জায়েদ আল নাহিয়ানের নেতৃত্বের উপর ভর দিয়ে আমাদের দু দেশের সম্পর্ক আরও ঘনিষ্ঠ হচ্ছে ও হবে।”

এসময়, ভারতের অত্যন্ত মর্যাদাপূর্ণ বিদ্যাপীঠ ইন্ডিয়ান ইনস্টিটিউট অফ টেকনোলজি (আইআইটি) দেশের বাইরে সংযুক্ত আরব আমিরাতে নিজেদের প্রথম ক্যাম্পাস খুলতে যাচ্ছে বলে জানান গোয়েল। পাশাপাশি স্বাক্ষরিত এসব চুক্তি উভয় দেশের জনগণের জন্যেই অপার কল্যাণ বয়ে আনবে বলে মন্তব্য করেন তিনি।

আলোচনাকালে, আগামীকাল শেষ হতে চলা দুবাই এক্সপো – ২০২০ এর ভূয়সী প্রশংসা করেন গোয়েল। গোটা আয়োজনকে প্রতিকূলতার বিরুদ্ধে সাহসের বিজয় হিসেবে আখ্যাদেন তিনি। উল্লেখ্য, উদ্বোধনের পর থেকে এখনও অবধি প্রায় ২৫ মিলিয়ন মানুষ দুবাই এক্সপোতে ভ্রমণ করেছেন।

প্রসঙ্গত, এবারের দুবাই এক্সপোর সবচেয়ে সম্মানজনক ও সবচেয়ে বড় এবং আকর্ষণীয় প্যাভিলিয়ন হিসেবে মর্যাদা পায় সেখানে খোলা ‘ইন্ডিয়ান প্যাভিলিয়ন।’ গতবছর এটির উদ্বোধন করেছিলেন পীযূষ গোয়েল নিজেই। খবর: ইন্ডিয়া নিউজ নেটওয়ার্ক

ট্যাগ:

আমিরাতের ব্যবসার জন্য ভারত উত্তম গন্তব্য: ভারতীয় মন্ত্রী

প্রকাশ: ০৭:২০:০৪ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ৩০ মার্চ ২০২২

সংযুক্ত আরব আমিরাতের ব্যবসায়ীদেরকে ভারতে বিনিয়োগের আহবান জানিয়েছেন ভারতের কেন্দ্রীয় বাণিজ্য ও শিল্পমন্ত্রী পীযূষ গোয়েল। গত ২৯ মার্চ, মঙ্গলবার, ভারত-আরব আমিরাত স্টার্টআপ ফোরাম – ২০২২ এ বক্তব্য প্রদানকালে এমন মন্তব্য করেন তিনি। অনুষ্ঠানটিতে যোগ দিতে দুদিন পূর্বেই আবুধাবি যান মোদী মন্ত্রীসভার গুরুত্বপূর্ণ এই সদস্য। সেখানে ভারতের বিনিয়োগ বান্ধব নীতি এবং সুযোগসমূহ সম্পর্কে সবাইকে অবহিত করেন মন্ত্রী।

গোয়েল বলেন, “ভারত অত্যন্ত স্বল্প খরচে যে সুবিধা প্রদান করে, তাতে কোনো সন্দেহ নেই যে এখনই ভারতে বিনিয়োগের উপযুক্ত সময়। অংশীদার হিসেবে আমরা এঁকে অন্যের অর্থনৈতিক ভবিষ্যতের সুরক্ষা দিতে পারি। মহামারী পরবর্তী বিশ্বের অর্থনীতির চাকা সচল করতে আমাদের এই অংশীদারিত্বকে কাজে লাগাতে পারি।”

এর আগে দুবাই এক্সপো – ২০২০ এ অংশ নিয়ে গোয়েল বলেছিলেন, “আমি বিশ্বাস করি আমরা আগামী বছরগুলোতে বৃদ্ধি ও উন্নয়নের শীর্ষে থাকবো। ভারতে প্রতিভার কোন কমতি নেই। বিনিয়োগকারীদের জন্য গুরুত্বপূর্ণ ও সহজ নীতি প্রয়োগ করেছি আমরা। বেশিরভাগ বিনিয়োগ খাতেই বর্তমানে এফডিআই ১০০% উন্মুক্ত। ভারতের শিল্প খাতকে উন্নত করতে প্রোডাকশন লিংকড ইনসেনটিভ স্কিম এবং মেক ইন ইন্ডিয়া নীতির মতো কয়েকটি প্রকল্প গ্রহণ করেছি আমরা।”

গোয়েল বলেন, “বিশ্ব সম্প্রদায়ের কাছে আমাদের আহবান, আসুন, অপার সম্ভাবনা ও সুযোগের দেশ ভারতের অভিজ্ঞতা গ্রহণ করুন। আসুন একত্রে বেড়ে উঠি, ভাগ্য পরিবর্তন করি এবং একত্রে সকল বাঁধা অতিক্রম করি। আমরা চাইলেই সবাই মিলে যেকোনো লক্ষ্য অর্জন করতে পারবো।”

গোয়েল আরও বলেন, “ভারত নির্ভীক এবং আত্মবিশ্বাসী এক রাষ্ট্র। আগামী ২৫ বছরে ভারতকে একটি শক্তিশালী ও অন্তর্ভূক্তিমূলক অবস্থানে নিয়ে যেতে হবে। প্রধানমন্ত্রী মোদী এবং আমিরাতের মহামান্য শেখ মোহাম্মদ বিন জায়েদ আল নাহিয়ানের নেতৃত্বের উপর ভর দিয়ে আমাদের দু দেশের সম্পর্ক আরও ঘনিষ্ঠ হচ্ছে ও হবে।”

এসময়, ভারতের অত্যন্ত মর্যাদাপূর্ণ বিদ্যাপীঠ ইন্ডিয়ান ইনস্টিটিউট অফ টেকনোলজি (আইআইটি) দেশের বাইরে সংযুক্ত আরব আমিরাতে নিজেদের প্রথম ক্যাম্পাস খুলতে যাচ্ছে বলে জানান গোয়েল। পাশাপাশি স্বাক্ষরিত এসব চুক্তি উভয় দেশের জনগণের জন্যেই অপার কল্যাণ বয়ে আনবে বলে মন্তব্য করেন তিনি।

আলোচনাকালে, আগামীকাল শেষ হতে চলা দুবাই এক্সপো – ২০২০ এর ভূয়সী প্রশংসা করেন গোয়েল। গোটা আয়োজনকে প্রতিকূলতার বিরুদ্ধে সাহসের বিজয় হিসেবে আখ্যাদেন তিনি। উল্লেখ্য, উদ্বোধনের পর থেকে এখনও অবধি প্রায় ২৫ মিলিয়ন মানুষ দুবাই এক্সপোতে ভ্রমণ করেছেন।

প্রসঙ্গত, এবারের দুবাই এক্সপোর সবচেয়ে সম্মানজনক ও সবচেয়ে বড় এবং আকর্ষণীয় প্যাভিলিয়ন হিসেবে মর্যাদা পায় সেখানে খোলা ‘ইন্ডিয়ান প্যাভিলিয়ন।’ গতবছর এটির উদ্বোধন করেছিলেন পীযূষ গোয়েল নিজেই। খবর: ইন্ডিয়া নিউজ নেটওয়ার্ক