০৯:৪২ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৬ জুলাই ২০২৪, ১ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

ভূটানের অর্থমন্ত্রীর সঙ্গে শ্রিংলার বৈঠক

ভারতে সফররত ভূটানের অর্থমন্ত্রী লিয়নপো লোকনাথ শর্মার সাথে সাক্ষাৎ করেছেন ভারতীয় পররাষ্ট্র সচিব শ্রী হর্ষবর্ধন শ্রিংলা। ১০ জানুয়ারী, সোমবার, নয়াদিল্লীতে উভয়ের মধ্যে বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়। আলোচনাকালে অর্থনৈতিক এবং জলবিদ্যুৎ খাতে সহযোগিতা বৃদ্ধির বিষয়ে মতবিনিময় করেন তাঁরা। পরবর্তীতে ভারতীয় পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের এক টুইটবার্তায় বিষয়টি জানানো হয়।

প্রসঙ্গত, ০৬ থেকে ২০ জানুয়ারী অবধি সময়কালে প্রায় দু সপ্তাহের সফরে ভারতে অবস্থান করছেন ভূটানের অর্থমন্ত্রী লিয়নপো শর্মা। এসময় ভারতের শিল্প ও বাণিজ্য মন্ত্রী পীযূষ গয়াল এবং বিদ্যুৎ মন্ত্রী আরকে সিং এর সঙ্গে সাক্ষাতের কথা রয়েছে তাঁর। তাছাড়া, ১০ জানুয়ারী থেকে ১২ জানুয়ারী অবধি অনুষ্ঠিতব্য ১০ ভাইব্রেন্ট গুজরাট গ্লোবাল সামিটে যোগ দিবেন তিনি।

উল্লেখ্য, স্মরণকালের অন্যতম ঘনিষ্ঠ সম্পর্ক উপভোগ করছে ভারত ও ভূটান। উভয়ের দ্বিপাক্ষিক সম্পর্ক বর্তমানে শিখড়ে অবস্থান করছে। নিয়মিত উচ্চ পর্যায়ের সফর এবং সংলাপের মাধ্যমে এই সম্পর্ক এগিয়ে নিচ্ছে উভয় দেশের সরকার।

এখনও পর্যন্ত, ভারত সরকার ভুটানে মোট ১৪১৬ মেগাওয়াটের (৩৩৬ মেগাওয়াট চুখা এইচইপি, ৬০ মেগাওয়াট কুরিচু এইচইপি এবং ১০২০ মেগাওয়াট তালা এইচইপি) তিনটি জলবিদ্যুৎ প্রকল্প (এইচইপি) নির্মাণ করেছে। উৎপাদিত বিদ্যুতের প্রায় তিন-চতুর্থাংশ রপ্তানি করা হয় এবং বাকিটা অভ্যন্তরীণ ব্যবহারের জন্য ব্যবহৃত হয়। জলবিদ্যুৎ রপ্তানি ভুটানের অভ্যন্তরীণ রাজস্বের ৪০% এরও বেশি প্রদান করে এবং এর জিডিপি এর ২৫% গঠন করে।

খবর: ইন্ডিয়া নিউজ নেটওয়ার্ক

ট্যাগ:

ভূটানের অর্থমন্ত্রীর সঙ্গে শ্রিংলার বৈঠক

প্রকাশ: ০৪:৪২:৫৯ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ১০ জানুয়ারী ২০২২

ভারতে সফররত ভূটানের অর্থমন্ত্রী লিয়নপো লোকনাথ শর্মার সাথে সাক্ষাৎ করেছেন ভারতীয় পররাষ্ট্র সচিব শ্রী হর্ষবর্ধন শ্রিংলা। ১০ জানুয়ারী, সোমবার, নয়াদিল্লীতে উভয়ের মধ্যে বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়। আলোচনাকালে অর্থনৈতিক এবং জলবিদ্যুৎ খাতে সহযোগিতা বৃদ্ধির বিষয়ে মতবিনিময় করেন তাঁরা। পরবর্তীতে ভারতীয় পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের এক টুইটবার্তায় বিষয়টি জানানো হয়।

প্রসঙ্গত, ০৬ থেকে ২০ জানুয়ারী অবধি সময়কালে প্রায় দু সপ্তাহের সফরে ভারতে অবস্থান করছেন ভূটানের অর্থমন্ত্রী লিয়নপো শর্মা। এসময় ভারতের শিল্প ও বাণিজ্য মন্ত্রী পীযূষ গয়াল এবং বিদ্যুৎ মন্ত্রী আরকে সিং এর সঙ্গে সাক্ষাতের কথা রয়েছে তাঁর। তাছাড়া, ১০ জানুয়ারী থেকে ১২ জানুয়ারী অবধি অনুষ্ঠিতব্য ১০ ভাইব্রেন্ট গুজরাট গ্লোবাল সামিটে যোগ দিবেন তিনি।

উল্লেখ্য, স্মরণকালের অন্যতম ঘনিষ্ঠ সম্পর্ক উপভোগ করছে ভারত ও ভূটান। উভয়ের দ্বিপাক্ষিক সম্পর্ক বর্তমানে শিখড়ে অবস্থান করছে। নিয়মিত উচ্চ পর্যায়ের সফর এবং সংলাপের মাধ্যমে এই সম্পর্ক এগিয়ে নিচ্ছে উভয় দেশের সরকার।

এখনও পর্যন্ত, ভারত সরকার ভুটানে মোট ১৪১৬ মেগাওয়াটের (৩৩৬ মেগাওয়াট চুখা এইচইপি, ৬০ মেগাওয়াট কুরিচু এইচইপি এবং ১০২০ মেগাওয়াট তালা এইচইপি) তিনটি জলবিদ্যুৎ প্রকল্প (এইচইপি) নির্মাণ করেছে। উৎপাদিত বিদ্যুতের প্রায় তিন-চতুর্থাংশ রপ্তানি করা হয় এবং বাকিটা অভ্যন্তরীণ ব্যবহারের জন্য ব্যবহৃত হয়। জলবিদ্যুৎ রপ্তানি ভুটানের অভ্যন্তরীণ রাজস্বের ৪০% এরও বেশি প্রদান করে এবং এর জিডিপি এর ২৫% গঠন করে।

খবর: ইন্ডিয়া নিউজ নেটওয়ার্ক