১১:২১ অপরাহ্ন, সোমবার, ০৪ মার্চ ২০২৪, ২১ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

আফগানিস্তানসহ গোটা অঞ্চলের জন্য হুমকি ‘সন্ত্রাসবাদ’: ভারত

জাতিসংঘে পাকিস্তানকে খোঁচা মেরে আফগানিস্তানের শাসক তালিবানকে বার্তা ভারতের। গত বছর কাবুল দখলের পর ভারত সহ গোটা বিশ্বকে অভয় প্রদান করে আফগানিস্তান জানিয়েছিল যে কোনোভাবেই তারা আফগান ভূমিকে জঙ্গি কার্যকলাপের জন্য ব্যবহার হতে দেবে না। এবার জাতিসংঘে ভারত তালিবানের কাছ থেকে সেই প্রতিশ্রুতি সম্পর্কে ‘কনক্রিট’ তথ্য চাইল।

সেই প্রতিশ্রুতি বাস্তবায়িত করতে তালিবান কতদূর এগিয়েছে, তা জানতে চাইল ভারত। বিশেষ করে পাকিস্তান ভিত্তিক নিষিদ্ধ জঙ্গি সংগঠনগুলো যাতে আফগানিস্তান থেকে কোনও মদদ না পায়, সেই বিষয়টি নিশ্চিত করতে তালিবান কী কী করছে তা জানতে চাইল ভারত।

জাতিসংঘে ভারতের দূত টিএস তিরুমূর্তি এই বিষয়ে ভারতের অবস্থান স্পষ্ট করে দেন নিরাপত্তা পরিষদের এই বৈঠকে। সেখানে তালিবানি দখলের পর আফগানিস্তানের পরিস্থিতি নিয়েও আলোচনা হয়। তিরুমূর্তি বলেন, “আফগানিস্তান এবং তালিবান সম্পর্কে বিশ্বের প্রত্যাশাগুলো জাতিসংঘের নিরাপত্তা পরিষদের রেজোলিউশন ২৫৯৩-তে স্পষ্টভাবে চিহ্নিত রয়েছে। সেখানে সন্ত্রাসবাদের বিরুদ্ধে লড়াইয়ের প্রয়োজনীয়তার কথা উল্লেখ করা রয়েছে।”

আফগানিস্তানের ভারতের প্রতিবেশী তথা দীর্ঘ দিনের অংশীদার। সেই পরিস্থিতিতে আফগানিস্তানের সাম্প্রতিক ঘটনাবলী নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করে ভারত। বিশেষ করে মানবিক পরিস্থিতির অবনতির কথা উল্লেখ করে উদ্বেগের কথা জানান তিরুমূর্তি।

তালিবান শাসিত আফগানিস্তানে মানবিক সহায়তা প্রদান, সত্যিকারের অন্তর্ভুক্তিমূলক এবং প্রতিনিধিত্বমূলক সরকার গঠন নিশ্চিত করা, সন্ত্রাসের বিরুদ্ধে লড়াই এবং নারী, শিশু এবং সংখ্যালঘুদের অধিকার সংরক্ষণের মতো বিষয়ে উদ্বেগের উল্লেখ করে ভারত।

তিরুমূর্তির বক্তব্য, “সন্ত্রাসবাদ আফগানিস্তান এবং সংলগ্ন অঞ্চলের জন্য একটি গুরুতর হুমকি হয়ে দাঁড়িয়েছে। নিষিদ্ধ সন্ত্রাসী সত্ত্বা যাতে আফগানিস্তানের মাটি থেকে কোনও ধরনের সমর্থন বা প্রত্যক্ষভাবে মদদ না পায় তা নিশ্চিত করার ক্ষেত্রে আমাদের সুনির্দিষ্ট অগ্রগতির উপর নজর রাখতে হবে।” খবর: ইন্ডিয়া নিউজ নেটওয়ার্ক

ট্যাগ:
জনপ্রিয়

আফগানিস্তানসহ গোটা অঞ্চলের জন্য হুমকি ‘সন্ত্রাসবাদ’: ভারত

প্রকাশ: ০৭:৫৬:৩৩ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২৭ জানুয়ারী ২০২২

জাতিসংঘে পাকিস্তানকে খোঁচা মেরে আফগানিস্তানের শাসক তালিবানকে বার্তা ভারতের। গত বছর কাবুল দখলের পর ভারত সহ গোটা বিশ্বকে অভয় প্রদান করে আফগানিস্তান জানিয়েছিল যে কোনোভাবেই তারা আফগান ভূমিকে জঙ্গি কার্যকলাপের জন্য ব্যবহার হতে দেবে না। এবার জাতিসংঘে ভারত তালিবানের কাছ থেকে সেই প্রতিশ্রুতি সম্পর্কে ‘কনক্রিট’ তথ্য চাইল।

সেই প্রতিশ্রুতি বাস্তবায়িত করতে তালিবান কতদূর এগিয়েছে, তা জানতে চাইল ভারত। বিশেষ করে পাকিস্তান ভিত্তিক নিষিদ্ধ জঙ্গি সংগঠনগুলো যাতে আফগানিস্তান থেকে কোনও মদদ না পায়, সেই বিষয়টি নিশ্চিত করতে তালিবান কী কী করছে তা জানতে চাইল ভারত।

জাতিসংঘে ভারতের দূত টিএস তিরুমূর্তি এই বিষয়ে ভারতের অবস্থান স্পষ্ট করে দেন নিরাপত্তা পরিষদের এই বৈঠকে। সেখানে তালিবানি দখলের পর আফগানিস্তানের পরিস্থিতি নিয়েও আলোচনা হয়। তিরুমূর্তি বলেন, “আফগানিস্তান এবং তালিবান সম্পর্কে বিশ্বের প্রত্যাশাগুলো জাতিসংঘের নিরাপত্তা পরিষদের রেজোলিউশন ২৫৯৩-তে স্পষ্টভাবে চিহ্নিত রয়েছে। সেখানে সন্ত্রাসবাদের বিরুদ্ধে লড়াইয়ের প্রয়োজনীয়তার কথা উল্লেখ করা রয়েছে।”

আফগানিস্তানের ভারতের প্রতিবেশী তথা দীর্ঘ দিনের অংশীদার। সেই পরিস্থিতিতে আফগানিস্তানের সাম্প্রতিক ঘটনাবলী নিয়ে উদ্বেগ প্রকাশ করে ভারত। বিশেষ করে মানবিক পরিস্থিতির অবনতির কথা উল্লেখ করে উদ্বেগের কথা জানান তিরুমূর্তি।

তালিবান শাসিত আফগানিস্তানে মানবিক সহায়তা প্রদান, সত্যিকারের অন্তর্ভুক্তিমূলক এবং প্রতিনিধিত্বমূলক সরকার গঠন নিশ্চিত করা, সন্ত্রাসের বিরুদ্ধে লড়াই এবং নারী, শিশু এবং সংখ্যালঘুদের অধিকার সংরক্ষণের মতো বিষয়ে উদ্বেগের উল্লেখ করে ভারত।

তিরুমূর্তির বক্তব্য, “সন্ত্রাসবাদ আফগানিস্তান এবং সংলগ্ন অঞ্চলের জন্য একটি গুরুতর হুমকি হয়ে দাঁড়িয়েছে। নিষিদ্ধ সন্ত্রাসী সত্ত্বা যাতে আফগানিস্তানের মাটি থেকে কোনও ধরনের সমর্থন বা প্রত্যক্ষভাবে মদদ না পায় তা নিশ্চিত করার ক্ষেত্রে আমাদের সুনির্দিষ্ট অগ্রগতির উপর নজর রাখতে হবে।” খবর: ইন্ডিয়া নিউজ নেটওয়ার্ক