০২:২৩ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ০৫ মার্চ ২০২৪, ২২ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

ভারত-আসিয়ান ডিজিটাল ওয়ার্ক প্ল্যান-২০২২ চূড়ান্ত

চূড়ান্ত করা হয়েছে ভারত-আসিয়ান ডিজিটাল ওয়ার্ক প্ল্যান ২০২২। ২৮ জানুয়ারী, শুক্রবার, দ্বিতীয় আসিয়ান ডিজিটাল মন্ত্রীদের (এডিজিএমআইএন) বৈঠকে সিদ্ধান্তটি গৃহীত হয়। ভারতের যোগাযোগ প্রতিমন্ত্রী দেবুসিংহ চৌহান এবং মিয়ানমারের পরিবহন ও যোগাযোগ মন্ত্রণালয়ের অ্যাডমিরাল টিন অং সান এর সভাপতিত্বে বৈঠকটি অনুষ্ঠিত হয়েছে।

ডিজিটাল ওয়ার্ক প্ল্যান ২০২২ এর অন্তর্ভূক্ত:

Ø  চুরি করা এবং নকল মোবাইল হ্যান্ডসেট আমদানি-রপ্তানীর বিরুদ্ধে লড়াই করার জন্য একটি সিস্টেম ডেভেলপ করা।

Ø  দেশব্যাপী পাবলিক ইন্টারনেটের জন্য ওয়াইফাই অ্যাক্সেস নেটওয়ার্ক ইন্টারফেস

Ø  ৫জি সক্ষমতা বৃদ্ধি ও সম্প্রসারণ

Ø  উন্নত স্যাটেলাইট কমিউনিকেশন এবং সাইবার ফরেনসিক স্থাপন

উল্লেখ্য, এডিজিএমআইএন হচ্ছে ১০ আসিয়ান দেশের সঙ্গে অংশীদার পক্ষসমূহ, যথাক্রমে, অস্ট্রেলিয়া, কানাডা, চীন, ইইউ, ভারত, জাপান, কোরিয়া প্রজাতন্ত্র, নিউজিল্যান্ড, রাশিয়া, যুক্তরাজ্য এবং মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের টেলিকম মন্ত্রীদের একটি বার্ষিক বৈঠক।

ভারতের যোগাযোগ মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, বৈঠকে ডিজিটাল অন্তর্ভুক্তি এবং একীকরণের চেতনায় আঞ্চলিক ডিজিটাল সহযোগিতা জোরদার করার বিভিন্ন বিষয়ে আলোচনা হয়েছে।

আলোচনাকালে ভারতের যোগাযোগ প্রতিমন্ত্রী দেবুসিংহ চৌহান বলেন, “তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি (আইসিটি) নাগরিক ও রাষ্ট্রের মধ্যে বর্ধিত সম্পৃক্ততার মাধ্যমে গণতান্ত্রিক ব্যবস্থাকে শক্তিশালী করে। তাছাড়া, আইসিটি ব্যবহার বাকস্বাধীনতা, মানবাধিকার এবং তথ্যের অবাধ প্রবাহকে উৎসাহিত করে এবং সিদ্ধান্ত গ্রহণের প্রক্রিয়ায় নাগরিকদের অংশগ্রহণের সুযোগ বিস্তৃত করে।”

পাশাপাশি গ্রামীণ এলাকায় বসবাসকারী মানুষের জীবনকে পরিবর্তন করার ক্ষেত্রে আইসিটি অন্যতম নিয়ামক ভূমিকা পালন করে বলে মন্তব্য করেন তিনি। মন্ত্রী জাতির উন্নয়নের জন্য বিভিন্ন প্রযুক্তিগত সমাধান লাভের ক্ষেত্রে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির দৃষ্টিভঙ্গির কথা স্মরণ করেন।

এছাড়া, করোনা মহামারী থেকে উত্তরণে এবং বিশ্ব অর্থনীতিকে কাঙ্ক্ষিত কক্ষপথে আনতে আইসিটি ব্যবহারের আহবান জানান তিনি। খবর: ইন্ডিয়া নিউজ নেটওয়ার্ক

ট্যাগ:
জনপ্রিয়

ভারত-আসিয়ান ডিজিটাল ওয়ার্ক প্ল্যান-২০২২ চূড়ান্ত

প্রকাশ: ০৭:৪৫:১০ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ২৯ জানুয়ারী ২০২২

চূড়ান্ত করা হয়েছে ভারত-আসিয়ান ডিজিটাল ওয়ার্ক প্ল্যান ২০২২। ২৮ জানুয়ারী, শুক্রবার, দ্বিতীয় আসিয়ান ডিজিটাল মন্ত্রীদের (এডিজিএমআইএন) বৈঠকে সিদ্ধান্তটি গৃহীত হয়। ভারতের যোগাযোগ প্রতিমন্ত্রী দেবুসিংহ চৌহান এবং মিয়ানমারের পরিবহন ও যোগাযোগ মন্ত্রণালয়ের অ্যাডমিরাল টিন অং সান এর সভাপতিত্বে বৈঠকটি অনুষ্ঠিত হয়েছে।

ডিজিটাল ওয়ার্ক প্ল্যান ২০২২ এর অন্তর্ভূক্ত:

Ø  চুরি করা এবং নকল মোবাইল হ্যান্ডসেট আমদানি-রপ্তানীর বিরুদ্ধে লড়াই করার জন্য একটি সিস্টেম ডেভেলপ করা।

Ø  দেশব্যাপী পাবলিক ইন্টারনেটের জন্য ওয়াইফাই অ্যাক্সেস নেটওয়ার্ক ইন্টারফেস

Ø  ৫জি সক্ষমতা বৃদ্ধি ও সম্প্রসারণ

Ø  উন্নত স্যাটেলাইট কমিউনিকেশন এবং সাইবার ফরেনসিক স্থাপন

উল্লেখ্য, এডিজিএমআইএন হচ্ছে ১০ আসিয়ান দেশের সঙ্গে অংশীদার পক্ষসমূহ, যথাক্রমে, অস্ট্রেলিয়া, কানাডা, চীন, ইইউ, ভারত, জাপান, কোরিয়া প্রজাতন্ত্র, নিউজিল্যান্ড, রাশিয়া, যুক্তরাজ্য এবং মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের টেলিকম মন্ত্রীদের একটি বার্ষিক বৈঠক।

ভারতের যোগাযোগ মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, বৈঠকে ডিজিটাল অন্তর্ভুক্তি এবং একীকরণের চেতনায় আঞ্চলিক ডিজিটাল সহযোগিতা জোরদার করার বিভিন্ন বিষয়ে আলোচনা হয়েছে।

আলোচনাকালে ভারতের যোগাযোগ প্রতিমন্ত্রী দেবুসিংহ চৌহান বলেন, “তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি (আইসিটি) নাগরিক ও রাষ্ট্রের মধ্যে বর্ধিত সম্পৃক্ততার মাধ্যমে গণতান্ত্রিক ব্যবস্থাকে শক্তিশালী করে। তাছাড়া, আইসিটি ব্যবহার বাকস্বাধীনতা, মানবাধিকার এবং তথ্যের অবাধ প্রবাহকে উৎসাহিত করে এবং সিদ্ধান্ত গ্রহণের প্রক্রিয়ায় নাগরিকদের অংশগ্রহণের সুযোগ বিস্তৃত করে।”

পাশাপাশি গ্রামীণ এলাকায় বসবাসকারী মানুষের জীবনকে পরিবর্তন করার ক্ষেত্রে আইসিটি অন্যতম নিয়ামক ভূমিকা পালন করে বলে মন্তব্য করেন তিনি। মন্ত্রী জাতির উন্নয়নের জন্য বিভিন্ন প্রযুক্তিগত সমাধান লাভের ক্ষেত্রে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির দৃষ্টিভঙ্গির কথা স্মরণ করেন।

এছাড়া, করোনা মহামারী থেকে উত্তরণে এবং বিশ্ব অর্থনীতিকে কাঙ্ক্ষিত কক্ষপথে আনতে আইসিটি ব্যবহারের আহবান জানান তিনি। খবর: ইন্ডিয়া নিউজ নেটওয়ার্ক