০৭:৫২ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ১৭ এপ্রিল ২০২৪, ৪ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

ভারত আঞ্চলিক সহযোগিতা জোরদারে প্রতিশ্রুতিবদ্ধ: মোদী

আঞ্চলিক সহযোগিতা ও একীকরণকে শক্তিশালী করতে ভারত প্রতিশ্রুতিবদ্ধ রয়েছে বলে মন্তব্য করলেন ভারতীয় প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। দক্ষিণ এশীয় আঞ্চলিক সহযোগিতা সংস্থা (সার্ক) -এর ৩৭তম সনদ চুক্তি স্বাক্ষর দিবস উপলক্ষ্যে দেশবাসীর উদ্দেশ্যে দেয়া এক বক্তব্যে এ কথা বলেন তিনি।

মোদী আরও বলেন, “সার্কের প্রতিষ্ঠাতা সদস্য হিসাবে ভারত এই অঞ্চলের সমস্ত দেশের উন্নয়ন এবং অগ্রগতিকে স্বাগত জানায়। আমরা আঞ্চলিক সহযোগিতা ও একীকরণকে শক্তিশালী করতে অঙ্গীকারবদ্ধ। এই অঞ্চলের মানুষের কল্যাণ এবং বৃহত্তর ভালোর জন্য সার্ক সদস্যদের সঙ্গে অর্থনৈতিক, বৈজ্ঞানিক এবং প্রযুক্তিগত অগ্রগতির সুফল ভাগ করে নিচ্ছি।”

করোনা মহামারীতেও সার্কের প্রতি ভারতের দায়বদ্ধতার কথা স্মরণ করিয়ে দেন মোদী। তিনি বলেন, “মহামারীতে আমরা আরও কাছাকাছি এসেছি। ওষুধ, চিকিৎসা সরঞ্জাম, ভ্যাকসিন সহ অন্যান্য সম্পদ ভাগাভাগি করে নিয়েছি। সক্ষমতা বৃদ্ধির উদ্যোগের মাধ্যমে দক্ষতা বাড়িয়েছি। সর্বোপরি, এসব বিষয়াদির ফলেই মহামারীর প্রভাব প্রশমিত হয়েছে।”

এসময়, সার্কের প্রকৃত লক্ষ্য ও উদ্দেশ্য বাস্তবায়নের উপর জোর দেন ভারতীয় প্রধানমন্ত্রী। তিনি বলেন, “আসুন আমরা একটি শান্তিপূর্ণ, সমৃদ্ধ ও সমন্বিত দক্ষিণ এশিয়া গড়ে তোলার জন্য আমাদের যৌথ অঙ্গীকার পূরণ করি।”

উল্লেখ্য, ১৯৮৫ সালে ০৮ ডিসেম্বর ঢাকায় অনুষ্ঠিত প্রথম সার্ক শীর্ষ সম্মেলনে সার্ক সনদ গৃহীত হয়। সার্কের আটটি সদস্য রাষ্ট্র রয়েছে, সেগুলো যথাক্রমে, আফগানিস্তান, বাংলাদেশ, ভুটান, ভারত, মালদ্বীপ, নেপাল, পাকিস্তান এবং শ্রীলঙ্কা।

তাছাড়া, সার্কে সহযোগিতার আটটি ক্ষেত্র রয়েছে। যেমন: মানব সম্পদ উন্নয়ন এবং পর্যটন; কৃষি ও পল্লী উন্নয়ন; পরিবেশ, প্রাকৃতিক দুর্যোগ এবং জৈবপ্রযুক্তি; অর্থনৈতিক, বাণিজ্য ও অর্থ, সামাজিক বিষয়; তথ্য ও দারিদ্র্য বিমোচন; শক্তি, পরিবহন, বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি; এবং শিক্ষা, নিরাপত্তা এবং সংস্কৃতি। খবর: ইন্ডিয়া নিউজ নেটওয়ার্ক

ট্যাগ:

ভারত আঞ্চলিক সহযোগিতা জোরদারে প্রতিশ্রুতিবদ্ধ: মোদী

প্রকাশ: ০২:১৬:১২ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ৮ ডিসেম্বর ২০২১

আঞ্চলিক সহযোগিতা ও একীকরণকে শক্তিশালী করতে ভারত প্রতিশ্রুতিবদ্ধ রয়েছে বলে মন্তব্য করলেন ভারতীয় প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। দক্ষিণ এশীয় আঞ্চলিক সহযোগিতা সংস্থা (সার্ক) -এর ৩৭তম সনদ চুক্তি স্বাক্ষর দিবস উপলক্ষ্যে দেশবাসীর উদ্দেশ্যে দেয়া এক বক্তব্যে এ কথা বলেন তিনি।

মোদী আরও বলেন, “সার্কের প্রতিষ্ঠাতা সদস্য হিসাবে ভারত এই অঞ্চলের সমস্ত দেশের উন্নয়ন এবং অগ্রগতিকে স্বাগত জানায়। আমরা আঞ্চলিক সহযোগিতা ও একীকরণকে শক্তিশালী করতে অঙ্গীকারবদ্ধ। এই অঞ্চলের মানুষের কল্যাণ এবং বৃহত্তর ভালোর জন্য সার্ক সদস্যদের সঙ্গে অর্থনৈতিক, বৈজ্ঞানিক এবং প্রযুক্তিগত অগ্রগতির সুফল ভাগ করে নিচ্ছি।”

করোনা মহামারীতেও সার্কের প্রতি ভারতের দায়বদ্ধতার কথা স্মরণ করিয়ে দেন মোদী। তিনি বলেন, “মহামারীতে আমরা আরও কাছাকাছি এসেছি। ওষুধ, চিকিৎসা সরঞ্জাম, ভ্যাকসিন সহ অন্যান্য সম্পদ ভাগাভাগি করে নিয়েছি। সক্ষমতা বৃদ্ধির উদ্যোগের মাধ্যমে দক্ষতা বাড়িয়েছি। সর্বোপরি, এসব বিষয়াদির ফলেই মহামারীর প্রভাব প্রশমিত হয়েছে।”

এসময়, সার্কের প্রকৃত লক্ষ্য ও উদ্দেশ্য বাস্তবায়নের উপর জোর দেন ভারতীয় প্রধানমন্ত্রী। তিনি বলেন, “আসুন আমরা একটি শান্তিপূর্ণ, সমৃদ্ধ ও সমন্বিত দক্ষিণ এশিয়া গড়ে তোলার জন্য আমাদের যৌথ অঙ্গীকার পূরণ করি।”

উল্লেখ্য, ১৯৮৫ সালে ০৮ ডিসেম্বর ঢাকায় অনুষ্ঠিত প্রথম সার্ক শীর্ষ সম্মেলনে সার্ক সনদ গৃহীত হয়। সার্কের আটটি সদস্য রাষ্ট্র রয়েছে, সেগুলো যথাক্রমে, আফগানিস্তান, বাংলাদেশ, ভুটান, ভারত, মালদ্বীপ, নেপাল, পাকিস্তান এবং শ্রীলঙ্কা।

তাছাড়া, সার্কে সহযোগিতার আটটি ক্ষেত্র রয়েছে। যেমন: মানব সম্পদ উন্নয়ন এবং পর্যটন; কৃষি ও পল্লী উন্নয়ন; পরিবেশ, প্রাকৃতিক দুর্যোগ এবং জৈবপ্রযুক্তি; অর্থনৈতিক, বাণিজ্য ও অর্থ, সামাজিক বিষয়; তথ্য ও দারিদ্র্য বিমোচন; শক্তি, পরিবহন, বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি; এবং শিক্ষা, নিরাপত্তা এবং সংস্কৃতি। খবর: ইন্ডিয়া নিউজ নেটওয়ার্ক