০১:১৫ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ০৫ মার্চ ২০২৪, ২২ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

ডিব্রুগড়ের পথে ‘গঙ্গা বিলাস’

দীর্ঘ পথ অতিক্রম শেষে যাত্রা শেষ করতে যাচ্ছে ভারত-বাংলাদেশ লাক্সারি ক্রুজ পরিষেবা ‘গঙ্গা বিলাস’। আগামী ২৮ ফেব্রুয়ারী আসামের ডিব্রুগড়ে নিজের শেষ গন্তব্যে পৌঁছাবে বিশ্বের দীর্ঘতম নদী ক্রুজ। এর আগে বারানসি হতে যাত্রারম্ভ করে বাংলাদেশ হয়ে গত শুক্রবার আসামের বিশ্বনাথে পৌঁছেছে জাহাজটি।

ইতোপূর্বে, বারানসি থেকে বাংলাদেশ হয়ে আসামের ডিব্রুগড় পর্যন্ত প্রমোদতরি ‘এম ভি গঙ্গা বিলাস’–এর শুভ যাত্রার উদ্বোধন করেছিলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। ১৩ জানুয়ারী, শুক্রবার, সকালে দিল্লি থেকে ভিডিও কনফারেন্সিংয়ের মধ্য দিয়ে এই প্রমোদতরির উদ্বোধন করে তিনি বলেছিলেন, “পর্যটনের এক নতুন দিগন্ত উন্মোচিত হলো। বাংলাদেশ ও ভারত—দুই দেশই এ ‘ক্রুজ’ থেকে উপকৃত হবে।” উল্লেখ্য, বারানসি প্রধানমন্ত্রী মোদীর নির্বাচনী কেন্দ্র।

জানা গেছে, তিনটি ডেকসহ এমভি গঙ্গা বিলাস দৈর্ঘ্যে ৬২ মিটার লম্বা ও প্রস্থে ১২ মিটার। এর ২৮টি বিলাসবহুল কামরায় ভ্রমণ করছেন সুইজারল্যান্ডের ২৭ জন ও জার্মানির ১ জন নাগরিক।

প্রসঙ্গত, এই প্রমোদতরি বারানসি থেকে যাত্রা শুরু করে বাংলাদেশ হয়ে আসাম রাজ্যের ডিব্রুগড়ে পৌঁছাতে যাচ্ছে ৫১ দিনে। এর মাঝেই পাড়ি দিয়েছে ৩ হাজার ২০০ কিলোমিটার। বিশ্বে নদীপথে এই যাত্রা দীর্ঘতম। এই দীর্ঘ পথে দুই দেশের মোট ২৭টি নদী পাড়ি দিয়েছে এই বেসরকারি প্রমোদতরি ‘গঙ্গা বিলাস’।

প্রধানমন্ত্রী মোদী এ বিষয়ে বলেন, এর ফলে পূর্ব ভারতের বহু পর্যটনস্থল বিশ্বের পর্যটন ম্যাপে স্থান করে নেবে। প্রধানমন্ত্রী এই সঙ্গে পশ্চিমবঙ্গের হলদিয়ায় ‘মাল্টি মোডাল টার্মিনাল’, গুয়াহাটিতে ‘মেরিটাইম স্কিল ডেভেলপমেন্ট সেন্টার’ ও আসামের পান্ডুতে জাহাজ সারানো কেন্দ্র, উত্তর প্রদেশ ও বিহারে দুটি কমিউনিটি জেটি এবং আসামে সড়ক উন্নয়ন প্রকল্পের উদ্বোধন অথবা ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করেছিলেন। খবর: ইন্ডিয়া নিউজ নেটওয়ার্ক

ট্যাগ:
জনপ্রিয়

ডিব্রুগড়ের পথে ‘গঙ্গা বিলাস’

প্রকাশ: ০২:৪৪:৩৩ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ২৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৩

দীর্ঘ পথ অতিক্রম শেষে যাত্রা শেষ করতে যাচ্ছে ভারত-বাংলাদেশ লাক্সারি ক্রুজ পরিষেবা ‘গঙ্গা বিলাস’। আগামী ২৮ ফেব্রুয়ারী আসামের ডিব্রুগড়ে নিজের শেষ গন্তব্যে পৌঁছাবে বিশ্বের দীর্ঘতম নদী ক্রুজ। এর আগে বারানসি হতে যাত্রারম্ভ করে বাংলাদেশ হয়ে গত শুক্রবার আসামের বিশ্বনাথে পৌঁছেছে জাহাজটি।

ইতোপূর্বে, বারানসি থেকে বাংলাদেশ হয়ে আসামের ডিব্রুগড় পর্যন্ত প্রমোদতরি ‘এম ভি গঙ্গা বিলাস’–এর শুভ যাত্রার উদ্বোধন করেছিলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। ১৩ জানুয়ারী, শুক্রবার, সকালে দিল্লি থেকে ভিডিও কনফারেন্সিংয়ের মধ্য দিয়ে এই প্রমোদতরির উদ্বোধন করে তিনি বলেছিলেন, “পর্যটনের এক নতুন দিগন্ত উন্মোচিত হলো। বাংলাদেশ ও ভারত—দুই দেশই এ ‘ক্রুজ’ থেকে উপকৃত হবে।” উল্লেখ্য, বারানসি প্রধানমন্ত্রী মোদীর নির্বাচনী কেন্দ্র।

জানা গেছে, তিনটি ডেকসহ এমভি গঙ্গা বিলাস দৈর্ঘ্যে ৬২ মিটার লম্বা ও প্রস্থে ১২ মিটার। এর ২৮টি বিলাসবহুল কামরায় ভ্রমণ করছেন সুইজারল্যান্ডের ২৭ জন ও জার্মানির ১ জন নাগরিক।

প্রসঙ্গত, এই প্রমোদতরি বারানসি থেকে যাত্রা শুরু করে বাংলাদেশ হয়ে আসাম রাজ্যের ডিব্রুগড়ে পৌঁছাতে যাচ্ছে ৫১ দিনে। এর মাঝেই পাড়ি দিয়েছে ৩ হাজার ২০০ কিলোমিটার। বিশ্বে নদীপথে এই যাত্রা দীর্ঘতম। এই দীর্ঘ পথে দুই দেশের মোট ২৭টি নদী পাড়ি দিয়েছে এই বেসরকারি প্রমোদতরি ‘গঙ্গা বিলাস’।

প্রধানমন্ত্রী মোদী এ বিষয়ে বলেন, এর ফলে পূর্ব ভারতের বহু পর্যটনস্থল বিশ্বের পর্যটন ম্যাপে স্থান করে নেবে। প্রধানমন্ত্রী এই সঙ্গে পশ্চিমবঙ্গের হলদিয়ায় ‘মাল্টি মোডাল টার্মিনাল’, গুয়াহাটিতে ‘মেরিটাইম স্কিল ডেভেলপমেন্ট সেন্টার’ ও আসামের পান্ডুতে জাহাজ সারানো কেন্দ্র, উত্তর প্রদেশ ও বিহারে দুটি কমিউনিটি জেটি এবং আসামে সড়ক উন্নয়ন প্রকল্পের উদ্বোধন অথবা ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করেছিলেন। খবর: ইন্ডিয়া নিউজ নেটওয়ার্ক