০৭:৫০ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ১৭ এপ্রিল ২০২৪, ৪ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

ভারতীয়-অজি স্টার্টআপগুলোকে এক হওয়ার ডাক গোয়েলের

অস্ট্রেলীয় ব্যবসা প্রতিষ্ঠানসমূহকে মেক ইন ইন্ডিয়া উদ্যোগে অংশ নেয়ার আমন্ত্রণ জানিয়ে ভারতের কেন্দ্রীয় বাণিজ্য ও শিল্পমন্ত্রী পীযূষ গোয়েল বলেছেন, “উভয় দেশের স্টার্টআপ সমূহকে অবশ্যই এঁকে অন্যের সাথে জড়ানো উচিত।” গত ০৮ এপ্রিল, শুক্রবার, পার্থে ওয়েস্টার্ন অস্ট্রেলিয়ার ডেপুটি প্রিমিয়ার রজার কুক আয়োজিত ব্যবসায়িক মধ্যাহ্নভোজে সমাবেশে ভাষণ দিতে গিয়ে এমন কথা বলেন তিনি।

গোয়েল বলেন, “উদ্ভাবন এবং গবেষণা খাতে অস্ট্রেলিয়ার চমৎকার ইতিহাস এবং নতুন পরিকল্পনা রয়েছে। অন্যদিকে, ভারতের কাছে এসব পরিকল্পনাকে সঠিক স্থান করে দেয়ার মতো যথেষ্ট প্রতিভা রয়েছে। তাই আমি আশা করি অস্ট্রেলিয়া থেকে ভারতে বিনিয়োগ দ্রুত গতিতে প্রবাহিত হবে।”

মন্ত্রী বলেন, “এই অঞ্চল এবং ভারতের মধ্যে নৈকট্য অনেক গভীর অর্থনৈতিক সম্পৃক্ততার সুযোগ দেয়।” এসময়, কৌশলগত অংশীদারিত্ব গড়ে তোলার জন্য ভারতের বিডের কথা বলতে গিয়ে গোয়েল বলেন, “ভারত কোয়াড এবং সাপ্লাই চেইন রেজিলিয়েন্স ইনিশিয়েটিভ এর অন্যতম অংশীজন হয়ে উঠেছে।”

বিশ্বের কিছু অংশে যে অশান্তির সৃষ্টি হয়েছে তা উল্লেখ করে, গোয়েল বলেন, “ভারত ও অস্ট্রেলিয়ার মতো দুটি শক্তিশালী গণতন্ত্রের উচিত ঘনিষ্ঠ দুই বন্ধুর মতো এঁকে অন্যের সমৃদ্ধির জন্য একসঙ্গে কাজ করা, একে অপরকে বিশ্বাস করা যা বিশ্বের কাছে একতার বার্তা পাঠাবে।”

মোদী মন্ত্রীসভার গুরুত্বপূর্ণ এই সদস্য বলেন, “আমাদের একতা ভূ-রাজনৈতিকভাবে আমাদেরকে আরও শক্তিশালী করবে। ইন্দো-প্যাসিফিক অঞ্চলকে শান্তি, সমৃদ্ধি, স্থিতিশীলতা, প্রশান্তি এবং প্রবৃদ্ধির অঞ্চল হিসাবে বজায় রাখার জন্য কাজ করব।”

এসময়, ভারত-অস্ট্রেলিয়া অর্থনৈতিক সহযোগিতা ও বাণিজ্য চুক্তি সম্পর্কেও কথা বলেন তিনি। মন্ত্রী বলেন, “আমাদের মধ্যকার এই চুক্তি দু দেশের সম্পর্ককে নতুন এক উচ্চতায় নিয়ে যাবে।”

শিক্ষা, গবেষণা, উদ্ভাবন, প্রযুক্তি, মহাকাশ, ম্যানুফ্যাকচারিং ইত্যাদির মতো বিষয়গুলো চুক্তির অধীনে ভালোভাবে ফোকাস করা হয়েছে বলেও জানান তিনি। এসব খাতে সম্পর্ক আরও জোরদারের আবেদন করেন তিনি। চুক্তিটিকে সর্বোপরি এক নতুন মাইলফলক হিসেবেও আখ্যা দেন গোয়েল। খবর: ইন্ডিয়া নিউজ নেটওয়ার্ক

ট্যাগ:

ভারতীয়-অজি স্টার্টআপগুলোকে এক হওয়ার ডাক গোয়েলের

প্রকাশ: ০৬:২২:১৫ অপরাহ্ন, শনিবার, ৯ এপ্রিল ২০২২

অস্ট্রেলীয় ব্যবসা প্রতিষ্ঠানসমূহকে মেক ইন ইন্ডিয়া উদ্যোগে অংশ নেয়ার আমন্ত্রণ জানিয়ে ভারতের কেন্দ্রীয় বাণিজ্য ও শিল্পমন্ত্রী পীযূষ গোয়েল বলেছেন, “উভয় দেশের স্টার্টআপ সমূহকে অবশ্যই এঁকে অন্যের সাথে জড়ানো উচিত।” গত ০৮ এপ্রিল, শুক্রবার, পার্থে ওয়েস্টার্ন অস্ট্রেলিয়ার ডেপুটি প্রিমিয়ার রজার কুক আয়োজিত ব্যবসায়িক মধ্যাহ্নভোজে সমাবেশে ভাষণ দিতে গিয়ে এমন কথা বলেন তিনি।

গোয়েল বলেন, “উদ্ভাবন এবং গবেষণা খাতে অস্ট্রেলিয়ার চমৎকার ইতিহাস এবং নতুন পরিকল্পনা রয়েছে। অন্যদিকে, ভারতের কাছে এসব পরিকল্পনাকে সঠিক স্থান করে দেয়ার মতো যথেষ্ট প্রতিভা রয়েছে। তাই আমি আশা করি অস্ট্রেলিয়া থেকে ভারতে বিনিয়োগ দ্রুত গতিতে প্রবাহিত হবে।”

মন্ত্রী বলেন, “এই অঞ্চল এবং ভারতের মধ্যে নৈকট্য অনেক গভীর অর্থনৈতিক সম্পৃক্ততার সুযোগ দেয়।” এসময়, কৌশলগত অংশীদারিত্ব গড়ে তোলার জন্য ভারতের বিডের কথা বলতে গিয়ে গোয়েল বলেন, “ভারত কোয়াড এবং সাপ্লাই চেইন রেজিলিয়েন্স ইনিশিয়েটিভ এর অন্যতম অংশীজন হয়ে উঠেছে।”

বিশ্বের কিছু অংশে যে অশান্তির সৃষ্টি হয়েছে তা উল্লেখ করে, গোয়েল বলেন, “ভারত ও অস্ট্রেলিয়ার মতো দুটি শক্তিশালী গণতন্ত্রের উচিত ঘনিষ্ঠ দুই বন্ধুর মতো এঁকে অন্যের সমৃদ্ধির জন্য একসঙ্গে কাজ করা, একে অপরকে বিশ্বাস করা যা বিশ্বের কাছে একতার বার্তা পাঠাবে।”

মোদী মন্ত্রীসভার গুরুত্বপূর্ণ এই সদস্য বলেন, “আমাদের একতা ভূ-রাজনৈতিকভাবে আমাদেরকে আরও শক্তিশালী করবে। ইন্দো-প্যাসিফিক অঞ্চলকে শান্তি, সমৃদ্ধি, স্থিতিশীলতা, প্রশান্তি এবং প্রবৃদ্ধির অঞ্চল হিসাবে বজায় রাখার জন্য কাজ করব।”

এসময়, ভারত-অস্ট্রেলিয়া অর্থনৈতিক সহযোগিতা ও বাণিজ্য চুক্তি সম্পর্কেও কথা বলেন তিনি। মন্ত্রী বলেন, “আমাদের মধ্যকার এই চুক্তি দু দেশের সম্পর্ককে নতুন এক উচ্চতায় নিয়ে যাবে।”

শিক্ষা, গবেষণা, উদ্ভাবন, প্রযুক্তি, মহাকাশ, ম্যানুফ্যাকচারিং ইত্যাদির মতো বিষয়গুলো চুক্তির অধীনে ভালোভাবে ফোকাস করা হয়েছে বলেও জানান তিনি। এসব খাতে সম্পর্ক আরও জোরদারের আবেদন করেন তিনি। চুক্তিটিকে সর্বোপরি এক নতুন মাইলফলক হিসেবেও আখ্যা দেন গোয়েল। খবর: ইন্ডিয়া নিউজ নেটওয়ার্ক