সোমবার, ০২ অগাস্ট ২০২১, ০৪:৫৩ পূর্বাহ্ন

শিরোনাম
ময়মনসিংহ জেলা এম্বুলেন্স মালিক সমিতির পরিচিত সভা অনুষ্ঠিত প্রণোদনাসহ ৬ দফা দাবিতে নাসাস’র স্মারকলিপি প্রদান লকডাউনে ক্ষতিগ্রস্ত সহস্রাধিক পরিবহন শ্রমিকদের নগদ অর্থ বিতরণ করেন মসিক মেয়র টিটু বাংলাদেশ জননেত্রী শেখ হাসিনা পরিষদের উদ্যোগে ময়মনসিংহের ত্রাণসামগ্রী বিতরণ জাবিতে সোসাইটি ফর ইন্টারন্যাশনাল অ্যাফেয়ার্স এর নতুন সভাপতি আবির, সম্পাদক আলিফ জাবিতে সেভ দ্য ফিউচার ফাউন্ডেশনের এর যাত্রা শুরু ময়মনসিংহ উপজেলা প্রশাসনের উদ্যোগে অসহায়দের মাঝে ত্রাণ বিতরণ ও বৃক্ষ রোপণ কর্মসূচি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা’র পক্ষ থেকে সপ্না খন্দকার এর উদ্যোগে ঈদ খাদ্য উপহার বিতরণ অটোরিক্সাচালক রুবেল হত্যার রহস্য উদঘাটন সহ গ্রেফতার ৩ জন লকডাউনে সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত পরিবহন শ্রমিকরা- মসিক মেয়র টিটু

দশ টাকায় দু’দিনের খাদ্য বিতরণ করছেন ময়মনসিংহ জেলা পুলিশ

দশ টাকায় দু’দিনের খাদ্য বিতরণ করছেন ময়মনসিংহ জেলা পুলিশ

এনামুল হক ছোটনঃ করোনা ভাইরাসের উর্ধ্বমুখী সংক্রমণের কারণে দেশব্যাপী চলমান কঠোর লকডাউনে কারণে কর্মহীন হয়ে পড়েছে হাজার হাজার মানুষ। দিন এনে দিন খাওয়া অনেক মানুষ,ঘর থেকে বের হলেই বিভিন্ন প্রশ্নের সম্মুখীন হতে হচ্ছে কিংবা হলেও কঠোর লকডাউন এর কারণে কাজ পাচ্ছে না, এছাড়াও প্রয়োজন ছাড়া কেউ ঘর থেকে বের হচ্ছে না কারণ অপ্রয়োজনে বের হলেই জরিমানা গুনতে হচ্ছে। এই কর্মমুখী মানুষগুলো কর্মহীন হয়ে পড়েছে। এমতাবস্থায় তাদের ও তাদের পরিবারের মাঝে খাদ্য সংকটের দেখা দিয়েছে।এই সকল অসহায় কর্মহীন মানুষদের খাদ্য সংকট নিরসনে তাদের পাশে দাড়িয়েছে ময়মনসিংহ জেলা পুলিশ। ময়মনসিংহের মানবিক জেলা পুলিশ সুপার মোহাঃ আহম্মার উজ্জামান পিপিএম সেবা খাদ্য সংকটে থাকা কর্মহীন অসহায় মানুষদের খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করে পুলিশ জনগণের বন্ধু তার প্রমাণ দিয়েচ্ছেন।

 

অতীতের ন্যায় “সবার রান্না ঘরে ভাতের গন্ধ ছুটুক” এই প্রতিপাদ্য নিয়ে ময়মনসিংহে দুস্থ কর্মহীন মানুষের জন্য স্বল্পমুল্যে দশ টাকায় দু’দিনের খাদ্যপন্য দিচ্ছে ময়মনসিংহ জেলা পুলিশ। গতকাল বুধবার ( ৭ জুলাই) ময়মনসিংহ পুলিশ সুপার কার্যালয়ের সামনে এই কার্যক্রমের উদ্ভোধন করেন ময়মনসিংহ জেলা পুলিশ সুপার মোহাঃ আহমার উজ্জামান বিপিএম সেবা। বিতরনকৃত খাদ্যপন্যের মধ্যে ছিলো পাঁচ কেজি চাউল, এক কেজি ডাল, আধা লিটার সয়াবিন তৈল, আধা কেজি লবণ, দুই কেজি আলু ও পরিমাণমত মশলা, পেয়াজ, রসুন এবং কাঁচা মরিচ। এ বিষয়ে পুলিশ সুপার মোহাম্মদ আহমার উজ্জামান বলেন, লকডাউনের সরকারি বিধি-নিষেধ প্রতিপালনে রাস্তায় বের হওয়া কর্মহীন দুস্থ মানুষদেরকে আমরা ঘরে ফেরত পাঠাচ্ছি। পাশাপাশি সেই সব কর্মহীন অসহায় পরিবারে মাঝে খাদ্য সংকটের মানবিক বিষয়টিকেও আমরা গুরুত্ব দিচ্ছি।

 

সেই ভাবনা থেকেই আমাদের (পুলিশের) এই মানবিক উদ্যোগ। পুলিশের পরিদর্শক থেকে উর্ধতন কর্মকর্তাদের স্বেচ্চা অনুদানের অর্থে এই কর্মসূচী হাতে নেওয়া হয়েছে। কঠোর লকডাউন শেষ না হওয়া পর্যন্ত এই কার্যক্রম চলবে বলেও জানিয়ে তিনি। পাশাপাশি তিনি সকলকে স্বাস্থ্য বিধি মেনে ঘরে থাকার আহবান জানান। জেলা গোয়েন্দা পুলিশের অফিসার ইনচার্জ (ওসি) শাহ্ কামাল আকন্দ জানান, প্রতিদিন শতাধিক মানুষের মাঝে দশ টাকার বিনিময়ে এই খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করা হবে। তিনি আরও জানান, এই খাদ্য দিয়ে একটি পরিবারে দু’দিন অনায়েসে চলতে পারবে সেই পরিমান খাদ্যপন্য বিতরণ করা হচ্ছে। এসময় ময়মনসিংহ জেলা পুলিশের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সহ উর্ধ্বতন পুলিশ কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন। উল্লেখ্য-গত রমযানেও ময়মনসিংহ জেলা পুলিশ রোজাদারদের জন্য মাসব্যাপী ৫ টাকায় ইফতার বিতরণ করে মানুষের মধ্যে খ্যাতি অর্জন করেছিলেন।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




© ২০১৯ দৈনিক নবযুগ কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত
Designed and developed by Smk Ishtiak